১৮ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, বৃহস্পতিবার,দুপুর ১:৩৫

শিরোনাম
সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ ঘোষণা, স্থগিত বৃহস্পতিবারের এইচএসসি পরীক্ষাও মুক্তিযোদ্ধাদের সর্বোচ্চ সম্মান দেখাতে হবে: প্রধানমন্ত্রী খুলনা মহানগরীর নতুন রাস্তা, জিরোপয়েন্ট ও শিববাড়ি মোড়ে সড়ক অবরোধ কেএমপি খুলনার অফিসার্স মেসের উদ্বোধন করেন আইজিপি খুলনায় আওয়ামী লীগের ৭৫তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালিত খুলনা জেলা আ’লীগের উদ্যোগে প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালিত কয়রায় মহসিন রেজা, ডুমুরিয়ায় এজাজ ও পাইকগাছায় আনন্দ চেয়ারম্যান নির্বাচিত খুলনায় নির্বাচন পরবর্তী সহিংসতা বিষয়ে সংবাদ সম্মেলন ফেরদৌস আহম্মেদ’র প্রধানমন্ত্রী গরিব-দু:খী মানুষের ভাগ্যের উন্নয়ন করে চলেছেন-কেসিসি মেয়র

জেলা পরিষদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা ছাড়াই ১৯ জন চেয়ারম্যান

প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ১৫, ২০২২

  • শেয়ার করুন

জেলা পরিষদ নির্বাচনে দেশের ১৯ জেলার চেয়ারম্যান প্রার্থী বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হতে যাচ্ছেন।

৮ বিভাগের মধ্যে ঢাকা বিভাগেই বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিতদের সংখ্যাই বেশি। এ বিভাগে ৬ জেলায় বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হচ্ছেন।

দ্বিতীয় অবস্থানে বরিশাল ও রাজশাহী বিভাগ। দুই বিভাগেই তিনটি জেলায় প্রতিদ্বন্দ্বিতা ছাড়াই নির্বাচিত হতে যাচ্ছেন জেলা পরিষদের চেয়ারম্যানরা।

মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ দিন বৃহস্পতিবার রিটার্নিং কর্মকর্তাদের পাঠানো তথ্য একীভূত করে নির্বাচন কমিশনের কাছে প্রতিবেদন তৈরি করে পাঠানো হয়েছে।

প্রার্থিতা প্রত্যাহারের সময় শেষ হলে রিটার্নিং কর্মকর্তারা একক প্রার্থীদের বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত ঘোষণা করবেন।

ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী, ৬১ জেলার এ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন ১৬২ জন, সাধারণ সদস্য পদে ১ হাজার ৯৮৩ জন ও সংরক্ষিত সদস্য পদে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন।

এদে মধ্যে চেয়ারম্যার পদে এক জন করে প্রার্থী রয়েছে ১৯ জেলায়।

যে ১৯ জেলায় বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত: ঢাকা বিভাগে নারায়ণগঞ্জ, গোপালগঞ্জ, টাঙ্গাইল, শরীয়তপুর, মুন্সিগঞ্জ, মাদারীপুর; বরিশাল বিভাগে ঝালকাঠি, বরগুনা, ভোলা, রাজশাহী বিভাগে চাঁপাইনবাবগঞ্জ, সিরাজগঞ্জ ও নওগাঁ; রংপুর বিভাগে লালমনিরহাট ও ঠাকুরগাঁও, চট্টগ্রাম বিভাগের লক্ষ্মীপুর ও ফেনী; সিলেট বিভাগের মৌলভীবাজার ও সিলেট এবং খুলনা বিভাগে বাগেরহাটে কোনো ভোট হচ্ছে না।

তফসিল অনুযায়ী-মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ সময় ছিল বৃহস্পতিবার, মনোনয়নপত্র বাছাই ১৮ সেপ্টেম্বর, মনোনয়নপত্র বাছাইয়ের বিরুদ্ধে আপিল করার সময় ১৯ থেকে ২১ সেপ্টেম্বর।

আপিল নিষ্পত্তি হবে ২২ থেকে ২৪ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত, প্রার্থিতা প্রত্যাহারের শেষ সময় ২৫ সেপ্টেম্বর। প্রতীক বরাদ্দ ২৬ সেপ্টেম্বর। আর ভোটগ্রহণ ১৭ অক্টোবর।

স্থানীয় সরকারের নির্বাচিত জনপ্রতিনিধিরাই এই নির্বাচনের ভোটার।

ভাল লাগলে শেয়ার করুন
  • শেয়ার করুন