২০শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, বৃহস্পতিবার,সকাল ৮:২৭

শিরোনাম
কয়রায় মহসিন রেজা, ডুমুরিয়ায় এজাজ ও পাইকগাছায় আনন্দ চেয়ারম্যান নির্বাচিত খুলনায় নির্বাচন পরবর্তী সহিংসতা বিষয়ে সংবাদ সম্মেলন ফেরদৌস আহম্মেদ’র প্রধানমন্ত্রী গরিব-দু:খী মানুষের ভাগ্যের উন্নয়ন করে চলেছেন-কেসিসি মেয়র খুলনায় তিনদফা দাবিতে ৩ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক কর্মচারীদের কর্মবিরতি পালন দীর্ঘ অপেক্ষার পর রেল নেটওয়ার্কে যুক্ত হলো মোংলা বন্দর সরকার সবসময় দুর্যোগে ক্ষতিগ্রস্থ মানুষের পাশে থাকবে-ভূমিমন্ত্রী খুলনায় নতুন ভবনে নতুন আঙ্গিকে গণহত্যা জাদুঘর বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে শারিরিক সম্পর্ক; মোংলা থানার ওসি (তদন্ত) ক্লোজড সুন্দরবনে আগুন, কারণ বের করতে আরও ৭ কার্যদিবস সময় নিলো তদন্ত কমিটি

কাল থেকে দোকানপাট সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত খোলা রাখা যাবে

প্রকাশিত: জুলাই ১, ২০২০

  • শেয়ার করুন

দেশে করোনাভাইরাস জনিত রোগ কোভিড-১৯ প্রতিরোধে সীমিত আকারে যান চলাচল এবং বাণিজ্যিক প্রতিষ্ঠান পরিচালনার মেয়াদ আগামী ৩ আগস্ট পর্যন্ত বাড়িয়েছে সরকার।

এর আওতায় সরকারি-বেসরকারি অফিস আগামী ৩ আগস্ট পর্যন্ত খোলা থাকবে। অন্যদিকে, দোকানপাট ও বিপণীকেন্দ্র আগামীকাল ১ জুলাই সকাল ১০টা থেকে সন্ধ্যে ৭টা পর্যন্ত খোলা রাখার অনুমতি পেয়েছে।

আজ মঙ্গলবার (৩০ জুন) মন্ত্রী পরিষদ বিভাগের মাঠ প্রশাসন সমন্বয় অধিশাখার পাঠানো এক প্রজ্ঞাপন সূত্রে এসব তথ্য জানা গেছে।

তবে বিশেষ কিছু শর্তের অধীনে এসব অনুমতি দেওয়া হয়েছে।

শর্তের আওতায়, রাত ১০টা থেকে ভোর ৫টা পর্যন্ত ওষুধপত্র ক্রয়, মৃতদেহ সৎকার, কর্মস্থলে যাতায়াত, চিকিৎসা সেবা প্রদাণ ইত্যাদি একান্ত জরুরি প্রয়োজন ছাড়া বাড়ির বাইরে বের হওয়া যাবে না। বাইরে বের হলে অবশ্যই মাস্ক পড়া, পারস্পরিক দূরত্ব বজায় রাখার মতো স্বাস্থ্যবিধিগুলো মেনে চলতে হবে।

জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে, হাটবাজার, দোকানপাটে ক্রয়-বিক্রয়কালে পারস্পরিক দূরত্ব বজায় রাখাসহ অন্যান্য স্বাস্থ্যবিধি কঠোরভাবে মেনে চলতে হবে। শপিংমলের প্রবেশমুখে হাত ধোয়া, স্যানিটাইজারের ব্যবস্থাসহ সেখানে আগত যানবাহনগুলোকে জীবাণুমুক্ত করার ব্যবস্থা রাখতে হবে। হাটবাজার, দোকানপাট ও শপিংমলগুলো আবশ্যিকভাবে সন্ধ্যা ৭টার মধ্যে বন্ধ করতে হবে।

এর আগে গত ৩০ মে পর্যন্ত সাধারণ ছুটি ছিল। পরে গত ৩১ মে থেকে ১৫ জুন পর্যন্ত স্বাস্থ্যবিধি মেনে সীমিত পরিসরে অফিস খুলে দেয়া হয়, চালু করা হয় গণপরিবহন। পরে এই ব্যবস্থা ৩০ জুন পর্যন্ত বর্ধিত করা হয়। সেই মেয়াদ শেষ হচ্ছে আজ।

এর মধ্যে দেশের মহামারি পরিস্থিতির কোনো উন্নতি না হওয়ায় শর্তসাপেক্ষে চলাচল ও বাণিজ্যিক কার্যক্রমের মেয়াদ বাড়িয়েছে সরকার।

ভাল লাগলে শেয়ার করুন
  • শেয়ার করুন