১৬ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, রবিবার,বিকাল ৩:৩৮

শিরোনাম
কয়রায় মহসিন রেজা, ডুমুরিয়ায় এজাজ ও পাইকগাছায় আনন্দ চেয়ারম্যান নির্বাচিত খুলনায় নির্বাচন পরবর্তী সহিংসতা বিষয়ে সংবাদ সম্মেলন ফেরদৌস আহম্মেদ’র প্রধানমন্ত্রী গরিব-দু:খী মানুষের ভাগ্যের উন্নয়ন করে চলেছেন-কেসিসি মেয়র খুলনায় তিনদফা দাবিতে ৩ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক কর্মচারীদের কর্মবিরতি পালন দীর্ঘ অপেক্ষার পর রেল নেটওয়ার্কে যুক্ত হলো মোংলা বন্দর সরকার সবসময় দুর্যোগে ক্ষতিগ্রস্থ মানুষের পাশে থাকবে-ভূমিমন্ত্রী খুলনায় নতুন ভবনে নতুন আঙ্গিকে গণহত্যা জাদুঘর বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে শারিরিক সম্পর্ক; মোংলা থানার ওসি (তদন্ত) ক্লোজড সুন্দরবনে আগুন, কারণ বের করতে আরও ৭ কার্যদিবস সময় নিলো তদন্ত কমিটি

করোনা প্রতিরোধ শুধুই কি সরকারের দায়িত্ব?

প্রকাশিত: জুলাই ৫, ২০২১

  • শেয়ার করুন

করোনা প্রতিরোধ শুধুই কি সরকারের দায়িত্ব? এ পরাশক্তি ভারতকে লন্ডভন্ড তছনছ করে কভিড ডেল্টা ভ্যারিয়েন্ট এখন আমাদের বাংলাদেশে বিস্তার লাভ করেছে। দীর্ঘ ১৫ মাস আমাদের করোনার সঙ্গে বসবাস । প্রায় ১০ সহস্রাধিক মানুষের মৃত্যু ও আক্রান্তের সংখ্যা লক্ষ লক্ষ । করোনা এখন শহর ছাড়িয়ে গ্রামে ছড়িয়ে পড়েছে। অনেকের ধারণা ভুল প্রমাণিত করে ধনী ও গরিবের ভেদাভেদ ভুলে আক্রান্তের সংখ্যা হু হু করে বেড়েছে । পাল্লা দিয়ে চলছে মৃত্যুর সংখ্যা। আমরা ইতিমধ্যে অনেক আপন জন প্রিয়জন পরিচিতজনদের হারিয়েছি। সরকার সাধারণ লকডাউন থেকে কঠিন লকডাউন দিলেও মানুষের সচেতনতা সে হারে বাড়েনি। বাজার রাস্তাঘাটে অলিগলিতে দেখলে মনে হয় দায়িত্বটা শুধু একমাত্র সরকারের।

সামাজিক দূরত্ব বজায় না রেখে মাস্ক ব্যবহার না করে। এখনো আড্ডা এবং চলাফেরা করতে দেখা যায়। এক গবেষণায় দেখা যায় আমাদের দেশের মানুষগুলো ” অপেক্ষাকৃত আবেগপ্রবণ , বেশি মিশুক আড্ডা প্রিয় , চার দেয়ালের ভিতর থাকতে চায় না। লোকজন সামাজিক কর্মকান্ডে অনেকটা বেশি আগ্রহী। সর্বোপরি স্বাধীনচেতা ” হয়তো তাই বিশেষ লকডাউন দেখার জন্য ঘর ছেড়ে বাহিরে চলে আসে কিন্তু আমাদের মনে রাখতে হবে বিশ্বের উন্নত রাষ্ট্রগুলো যেমন ব্রাজিল-ইতালি ও ভারতে করোনায় যেভাবে তাণ্ডব চালিয়েছে এবং আমরা গঙ্গায় লাশ ভাসতে দেখেছি, কবরখানায় শ্মশানে লাশের সারিবদ্ধ স্তুপ , রাস্তায়, পার্কে মানুষের মৃত্যুর আহাজারি দেখেছি যাহা অত্যন্ত হৃদয় বিদারক । আমাদের সতর্কতার কোন বিকল্প নাই আমরা যদি লকডাউন মেনে, সামাজিক দূরত্ব বজায় না রেখে চলি, ঘর থেকে বের হলে মাস্ক পরিধান না করি, ঘনঘন সাবান-পানি দিয়ে বিশ সেকেন্ড হাত না ধৌত করি তাহলে আমাদের ভাগ্যেও কিন্তু সামনে খুব কঠিন খারাপ দিন আসছে । একটি মৃত্যু হয়তো টেলিভিশনে একটি সংখ্যা বৃদ্ধি করে কিন্তু মৃত ব্যক্তির যে পরিবার থেকে চলে যায়, তারাই একমাত্র কষ্টটা অনুভব করতে পারে। আমরা আমাদের কোন প্রিয় জন আপনজনকে হয়তো জীবন ফিরিয়ে দিতে পারব না । কিন্তু আমাদের ভুলের বা অসতর্কতার কারনে যেন কারো জীবন হানি না হয়। অসুস্থ বোধ করলে জ্বর সর্দি কাশি হলে সরকারি হাসপাতালে বিনামূল্যে পরীক্ষা করিয়ে নিতে হবে । ডাক্তারের পরামর্শ নিয়ে প্রয়োজনে আইসোলেশনে থাকতে হবে। ভ্যাকসিনের জন্য রেজিস্ট্রেশন করে সময়মতো টিকা নিতে হবে ।

জাতির এই ক্রান্তিলগ্নে সরকারের পাশাপাশি আমাদের সকলকে দায়িত্বশীল ভূমিকা পালন করতে হবে। মহান রাব্বুল আলামিন আমাদের এই করোনাভাইরাস থেকে মুক্তি দিন। সকলের সুস্থতা কামনা করছি।

লেখকঃ

মোঃ মফিদুল ইসলাম টুটুল।
উপ প্রচার ও প্রকাশনা বিষয়ক সম্পাদক
খুলনা মহানগর আওয়ামী লীগ

ভাল লাগলে শেয়ার করুন
  • শেয়ার করুন