১৬ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, রবিবার,বিকাল ৩:০৮

শিরোনাম
কয়রায় মহসিন রেজা, ডুমুরিয়ায় এজাজ ও পাইকগাছায় আনন্দ চেয়ারম্যান নির্বাচিত খুলনায় নির্বাচন পরবর্তী সহিংসতা বিষয়ে সংবাদ সম্মেলন ফেরদৌস আহম্মেদ’র প্রধানমন্ত্রী গরিব-দু:খী মানুষের ভাগ্যের উন্নয়ন করে চলেছেন-কেসিসি মেয়র খুলনায় তিনদফা দাবিতে ৩ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক কর্মচারীদের কর্মবিরতি পালন দীর্ঘ অপেক্ষার পর রেল নেটওয়ার্কে যুক্ত হলো মোংলা বন্দর সরকার সবসময় দুর্যোগে ক্ষতিগ্রস্থ মানুষের পাশে থাকবে-ভূমিমন্ত্রী খুলনায় নতুন ভবনে নতুন আঙ্গিকে গণহত্যা জাদুঘর বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে শারিরিক সম্পর্ক; মোংলা থানার ওসি (তদন্ত) ক্লোজড সুন্দরবনে আগুন, কারণ বের করতে আরও ৭ কার্যদিবস সময় নিলো তদন্ত কমিটি

সংবাদকর্মীদের পেশাগত কাজে সহযোগিতার আহ্বান জানিয়েছে খুলনা প্রেসক্লাবের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক

প্রকাশিত: জুন ৩০, ২০২১

  • শেয়ার করুন

করোনাভাইরাসের (কোভিড-১৯) সংক্রমণ রোধে আগামীকাল বৃহস্পতিবার (১ জুলাই) থেকে সারাদেশে কঠোর বিধিনিষেধ আরোপ করেছে সরকার। এই বিধিনিষেধ চলাকালে সাংবাদিকদের পেশাগত কাজে সহযোগিতা করতে প্রশাসনসহ সংশ্লিষ্টদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে খুলনা প্রেসক্লাবের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক।

বুধবার (৩০ জুন) খুলনা ক্লাবের সভাপতি এস এম জাহিদ হোসেন ও সাধারণ সম্পাদক হাসান আহমেদ মোল্লা এক বিজ্ঞপ্তিতে এ আহ্বান জানান।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, খুলনাসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে করোনাভাইরাস সংক্রমণ পরিস্থিতি উদ্বেগজনক পর্যায়ে পৌঁছে যাওয়ায় আগামীকাল ১লা জুলাই থেকে ৭ জুলাই পর্যন্ত সাত দিন সারাদেশে ‘সর্বাত্মক লকডাউন’ ঘোষণা করেছে সরকার। সরকারের এই সময়োপযোগী ঘোষণাকে সাধুবাদ জানিয়ে বিবৃতি প্রদান করেছেন খুলনা প্রেসক্লাব নেতৃবৃন্দ।
এক বিবৃতিতে, খুলনা প্রেসক্লাবের সভাপতি এস এম জাহিদ হোসেন ও সাধারণ সম্পাদক হাসান আহমেদ মোল্লা আশা প্রকাশ করেছেন যে, এভাবে সর্বাত্মক লকডাউন পালন করে মহামারি এই করোনা ভাইরাস প্রতিরোধ করা সম্ভব হবে। নেতৃবৃন্দ খুলনার সর্বস্তরের জণসাধারণকে সরকার ঘোষিত নির্ধারিত সময় পর্যন্ত এই সর্বাত্মক লকডাউন পালন করতে সরকারের সিদ্ধান্তসমূহ যথাযথ পালন করার আহবান জানিয়ে আশা প্রকাশ করেছেন যে, লকডাউন সর্বাত্মকভাবে সফল করতে সর্বস্তরের জনগণ স্থানীয় প্রশাসন, আইন-শৃংখলা বাহিনীকে সহযোগিতা করবেন।
একইসাথে লকডাউনের আওতামুক্ত জরুরী সেবায় নিয়োজিত সকল মানুষ বিশেষ করে খুলনায় কর্মরত সকল সাংবাদিক, গণমাধ্যম কর্মী ও সংবাদপত্র হকাররা যাতে অযথা হয়রানীর শিকার না হয় তার জন্য স্থানীয় প্রশাসন ও আইন-শৃংখলা বাহিনীর প্রতি আহবান জানিয়েছেন।

উল্লেখ্য, সরকার ঘোষিত বিধিনিষেধের মধ্যে গণমাধ্যমকে জরুরি সেবার অধিভুক্ত করা হয়েছে। যা আজ ৩০ জুন প্রকাশিত প্রজ্ঞাপনের ১.৮ নাম্বার শর্তে উল্লেখ করা হয়েছে।

ভাল লাগলে শেয়ার করুন
  • শেয়ার করুন