২০শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, বৃহস্পতিবার,সকাল ৭:৫৯

শিরোনাম
কয়রায় মহসিন রেজা, ডুমুরিয়ায় এজাজ ও পাইকগাছায় আনন্দ চেয়ারম্যান নির্বাচিত খুলনায় নির্বাচন পরবর্তী সহিংসতা বিষয়ে সংবাদ সম্মেলন ফেরদৌস আহম্মেদ’র প্রধানমন্ত্রী গরিব-দু:খী মানুষের ভাগ্যের উন্নয়ন করে চলেছেন-কেসিসি মেয়র খুলনায় তিনদফা দাবিতে ৩ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক কর্মচারীদের কর্মবিরতি পালন দীর্ঘ অপেক্ষার পর রেল নেটওয়ার্কে যুক্ত হলো মোংলা বন্দর সরকার সবসময় দুর্যোগে ক্ষতিগ্রস্থ মানুষের পাশে থাকবে-ভূমিমন্ত্রী খুলনায় নতুন ভবনে নতুন আঙ্গিকে গণহত্যা জাদুঘর বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে শারিরিক সম্পর্ক; মোংলা থানার ওসি (তদন্ত) ক্লোজড সুন্দরবনে আগুন, কারণ বের করতে আরও ৭ কার্যদিবস সময় নিলো তদন্ত কমিটি

বঙ্গমাতা ফজিলাতুন নেছা মুজিবের জন্মবার্ষিকী উদযাপিত

প্রকাশিত: আগস্ট ৮, ২০২৩

  • শেয়ার করুন

তথ্য প্রতিবেদক : স্বাধীনতার মহান স্থপতি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সহধর্মিণী বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন নেছা মুজিবের ৯৩তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষ্যে আলোচনা সভা ও অস্বচ্ছল মহিলাদের মাঝে সেলাই মেশিন বিতরণ এবং আর্থিক সহায়তা প্রদান অনুষ্ঠান আজ (মঙ্গলবার) খুলনা জেলা প্রশাসকের সম্মেলনকক্ষে অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন খুলনা সিটি কর্পোরেশনের মেয়র তালুকদার আব্দুল খালেক।

জন্মবার্ষিকী পালনে এবারের প্রতিপাদ্য ‘সংগ্রাম-স্বাধীনতা প্রেরণায় বঙ্গমাতা’।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে সিটি মেয়র বলেন, বাঙালি জাতির স্বাধিকার আন্দোলন ও মুক্তিসংগ্রামের নেপথ্যের কারিগর হিসেবে প্রতিটি পদক্ষেপে বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন নেছা মুজিব বঙ্গবন্ধুকে সক্রিয় সহযোগিতা করেছেন। বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন নেছা মুজিব ছিলেন একজন সাধারণ বাঙালি নারীর মতো স্বামী-সংসার, আত্মীয়-স্বজন নিয়ে ব্যস্ত থাকলেও বাংলাদেশের স্বাধীনতা সংগ্রাম, মুক্তিযুদ্ধ এবং স্বাধীনতার পর দেশ পুর্নগঠনে তিনি অনন্য ভূমিকা রেখে গেছেন। তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধু রাজনৈতিক কারণে কারাগারে থাকায় সাহসের সাথে ফজিলাতুন নেছা মুজিব পরিবার ও দলকে সুসংগঠিত করে সঠিক পথে পরিচালিত করেছেন। বঙ্গবন্ধুর রাজনৈতিক সাফল্যেও বঙ্গমাতার অবদান ছিলো গুরুত্বপূর্ণ। তিনি উচ্চশিক্ষায় শিক্ষিত না হয়েও জ্ঞানসম্পন্ন নারী ছিলেন।

খুলনার জেলা প্রশাসক খন্দকার ইয়াসির আরেফীনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন পুলিশ সুপার মোহাম্মদ সাঈদুর রহমান। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন মহিলা বিষয়ক দপ্তরের উপপরিচালক হাসনা হেনা। অনুষ্ঠানে মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এমডিএ বাবুল রানা, প্রেসক্লাবের সভাপতি এস এম নজরুল ইসলাম, বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ আলমগীর কবির ও বীর মুক্তিযোদ্ধা সরদার মাহাবুবার রহমান বক্তব্য রাখেন। সভায় সরকারি-বেসরকারি দপ্তরের কর্মকর্তা ও বিভিন্ন নারী সংগঠনের প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন। খুলনা জেলা প্রশাসন ও মহিলা বিষয়ক দপ্তর এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করে।

অনুষ্ঠান শেষে অস্বচ্ছল নারীদের মাঝে আর্থিক সহায়তা ও সেলাই মেশিন বিতরণ করা হয়। অনুষ্ঠানে বঙ্গমাতার জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে খুলনা মহানগরসহ নয়টি উপজেলার ১১০জন অসচ্ছল ও অসহায় নারীদের মাঝে একটি করে সেলাই মেশিন এবং ৪০জন দুস্থ মহিলার মাঝে মোবাইল ব্যাংকিং এর মাধ্যমে জনপ্রতি দুই হাজার টাকা করে আর্থিক সহায়তা প্রদান করা হয়।

এর আগে সিটি মেয়রসহ অতিথিরা জেলা প্রশাসকের সম্মেলনকক্ষে স্থাপিত বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন নেছা মুজিবের প্রতিকৃতিতে পুষ্পমাল্য অর্পণ করে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন।

ভাল লাগলে শেয়ার করুন
  • শেয়ার করুন