১৫ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, শনিবার,রাত ৪:৫৮

শিরোনাম
কয়রায় মহসিন রেজা, ডুমুরিয়ায় এজাজ ও পাইকগাছায় আনন্দ চেয়ারম্যান নির্বাচিত খুলনায় নির্বাচন পরবর্তী সহিংসতা বিষয়ে সংবাদ সম্মেলন ফেরদৌস আহম্মেদ’র প্রধানমন্ত্রী গরিব-দু:খী মানুষের ভাগ্যের উন্নয়ন করে চলেছেন-কেসিসি মেয়র খুলনায় তিনদফা দাবিতে ৩ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক কর্মচারীদের কর্মবিরতি পালন দীর্ঘ অপেক্ষার পর রেল নেটওয়ার্কে যুক্ত হলো মোংলা বন্দর সরকার সবসময় দুর্যোগে ক্ষতিগ্রস্থ মানুষের পাশে থাকবে-ভূমিমন্ত্রী খুলনায় নতুন ভবনে নতুন আঙ্গিকে গণহত্যা জাদুঘর বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে শারিরিক সম্পর্ক; মোংলা থানার ওসি (তদন্ত) ক্লোজড সুন্দরবনে আগুন, কারণ বের করতে আরও ৭ কার্যদিবস সময় নিলো তদন্ত কমিটি

খুলনায় মৎস্য সপ্তাহের উদ্বোধন

প্রকাশিত: জুলাই ২৫, ২০২৩

  • শেয়ার করুন

তথ্য প্রতিবেদকঃ ‘নিরাপদ মাছে ভরবো দেশ, গড়বো স্মার্ট বাংলাদেশ’ প্রতিপাদ্য নিয়ে জাতীয় মৎস্য সপ্তাহের উদ্বোধন ও আলোচনা সভা আজ (মঙ্গলবার) সকালে খুলনা জেলা প্রশাসকের সম্মেলনকক্ষে অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি  ছিলেন খুলনার বিভাগীয় কমিশনার মোঃ হেলাল মাহমুদ শরীফ।
প্রধান অতিথির বক্তব্যে বিভাগীয় কমিশনার বলেন, মেধাবী জাতি গঠনে মৎস্য সেক্টর অবদান রেখে চলেছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে মৎস্যসহ সকল সেক্টরের উন্নয়ন হয়েছে। এখন নিরাপদ মাছ উৎপাদন নিশ্চিত করা জরুরি। এক্ষেত্রে মৎস্যসেক্টরসহ সংশ্লিষ্টদের এগিয়ে আসতে হবে। তিনি বলেন, অন্যান্য চিংড়ির পাশাপাশি ভেনামী চিংড়ি চাষে দেশে সফলতা এসেছে। বিদেশি প্রজাতির মাছচাষের পাশাপাশি দেশিয় প্রজাতির মাছ রক্ষার কোন বিকল্প নেই। প্রতিটি উন্মুক্ত জলাশয়কে বৈজ্ঞানিক পদ্ধতিতে মাছচাষের উপযোগী করে তুলতে পারলে মাছের উৎপাদন বৃদ্ধি পাবে। মাছে অপদ্রব্য মেশানো থেকে সকলকে বিরত থাকতে হবে। যারা মাছে ক্ষতিকর রাসায়নিক দ্রব্য মেশায় তাদের আইনের আওতায় আনা প্রয়োজন।
খুলনার জেলা প্রশাসক খন্দকার ইয়াসির আরেফীনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন খুলনা মৎস্য অধিদপ্তরের বিভাগীয় উপপরিচালক মোঃ জাহাঙ্গীর আলম, খুলনা মেট্রোপলিটন পুলিশের উপপুলিশ কমিশনার (সাউথ) মোঃ তাজুল ইসলাম ও অতিরিক্ত পুলিশ সুপার তানভীর আহমদ। স্বাগত বক্তব্য রাখেন জেলা মৎস্য কর্মকর্তা জয়দেব পাল। অনুষ্ঠানে ফ্রোজেন ফুড এক্সপোর্টার্স এ্যাসোসিয়েশনের পরিচালক শেখ কামরুল আলম, রূপসা চিংড়ি বণিক সমিতির সভাপতি মোঃ আব্দুল মান্নান, পোল্ট্রি ফিস ফিড মালিক সমিতির মহাসচিব এস এম সোহরাব হোসেন, চিংড়িচাষি প্রফুল্ল কুমার রায় প্রমুখ বক্তব্য রাখেন। অনুষ্ঠানে মৎস্যচাষি, সামুদ্রিক মৎস্য আহরণকারী, মৎস্য ব্যবসায়ী, রপ্তানিকারক, মৎস্যচাষী সমিতি, মৎস্যজীবী সমিতি ও মৎস্যখাদ্য বিক্রেতা সমিতির প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।
অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি সফল মৎস্যচাষি, ব্যক্তি, উদ্যোক্তা ও প্রতিষ্ঠানের মাঝে ক্রেস্ট বিতরণ করেন। এবছর সফল মৎস্যচাষিরা হলেন: তেরখাদার এস এম ওবায়দুল্লাহ, বটিয়াঘাটার প্রফুল্ল কুমার রায়, খুলনা রায়েরমহলের শাকিল হোসেন, গোলাম কিবরিয়া রিপন, খুলনার শাহ নূর মোহাম্মদ, বটিয়াঘাটার মোঃ শফিকুল ইসলাম এবং রূপসার মোঃ আসাদুজ্জামান। প্রতিষ্ঠানের মধ্যে দিঘলিয়া আড়ংঘাটার মেসার্স মোড়ল মৎস্য খামার, ফুলতলার মেসার্স আইয়ান ফিশারিজ এন্ড এ্যাকোয়াকালচার, দাকোপের মেসার্স আবুল ফিস প্রোডাক্টস লিঃ, খুলনার সাইফুল খান, রূপসা চিংড়ি বণিক সমিতি ও সফল নারী উদ্যোক্তা ডুমুরিয়ার আফরোজা খানম সম্মাননা ক্রেস্ট লাভ করেন। এছাড়া গবেষণা প্রতিষ্ঠানের মধ্যে খুলনা বিশ^বিদ্যালয়ের ফিশারিজ এন্ড মেরিন রিসোর্সেস টেকনোলজি ডিসিপ্লিন, রপ্তানিকারক প্রতিষ্ঠানের মধ্যে রূপসার খুলনা ফ্রোজেন ফুডস এক্সপোর্ট লিঃ, ফ্রেশ ফুডস লিঃ; সালাম সী ফুডস লিঃ, প্রিয়াম ফিস এক্সপোর্ট লিঃ; এটলাস সী ফুডস লিঃ এবং বায়োনিক সী ফুডস এক্সপোর্ট লিমিটেডকে সম্মাননা ক্রেস্ট দেয়া হয়।
এর আগে বিভাগীয় কমিশনার নগরীর শহিদ হাদিস পার্ক পুকুরে মাছের পোনা অবমুক্ত করেন এবং মৎস্য সপ্তাহ উপলক্ষে আয়োজিত বর্ণাঢ্য র‌্যালিতে নেতৃত্বে দেন। র‌্যালিটি শহিদ হাদিস পার্ক থেকে শুরু হয়ে বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে এসে শেষ হয়। র‌্যালিতে বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষ অংশগ্রহণ করেন।  জেলা প্রশাসন ও মৎস্য অধিদপ্তরের খুলনা জেলা কার্যালয় এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করে।

ভাল লাগলে শেয়ার করুন
  • শেয়ার করুন