১৪ই এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, রবিবার,রাত ৮:৩৯

খুলনায় কিশোর গ্যাংয়ের লিডার বাবু গাজী গ্রেফতার

প্রকাশিত: জুলাই ১৬, ২০২১

  • শেয়ার করুন

স্টাফ রিপোর্টার: দিঘলিয়ায় কিশোর গ্যাং লিডার ও হত্যাসহ একাধিক মামলার আসামি বাবু গাজী (২৮) কে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।
একটি হত্যা প্রচেষ্টা মামলায় শুক্রবার তাকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে।
এর আগে বৃহস্পতিবার রাতে স্থানীয় পথেরবাজার এলাকা থেকে দিঘলিয়া থানা পুলিশ তাকে গ্রেফতার করে।
সে উপজেলার গাজীপাড়া চন্দনিমহল গ্রামের সিরাজ গাজীর পুত্র।
তার বিরুদ্ধে সেনহাটী ইউপি’র সাবেক চেয়ারম্যান গাজী আব্দুল হালিম হত্যা, বর্তমান সেনহাটী ইউপি চেয়ারম্যান জিয়া গাজীকে হত্যা চেষ্টাসহ ৭-৮টি মামলা রয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। সর্বশেষ বাবু গাজী হামলা চালিয়ে হত্যা প্রচেষ্টা ও অর্থ ছিনিয়ে নেয়ার অভিযোগে দায়েরকৃত মামলায় গ্রেফতার হয়।
বিষয়টি নিশ্চিত করে মামলার তদন্ত কর্মকর্তা দিঘলিয়া থানার এসআই রানা প্রতাপ সাহা বলেন, গত ৭ জুনের একটি মামলায় বাবু গাজীকে গ্রেফতার করা হয়েছে। সে ওই মামলার প্রধান আসামি। এছাড়াও তার বিরুদ্ধে আরও ৭-৮টি মামলা রয়েছে।
পুলিশ জানিয়েছে, সেনহাটির কলোনী নতুন পাড়ার হালিম ভান্ডারী নামে এক ব্যক্তিকে মারধর ও তার কাছ থেকে টাকা ছিনিয়ে নেয়ার অভিযোগে গত ৭ জুন বাবু গাজীসহ ৮জনকে আসামি করে থানায় মামলা দায়ের করা হয়। হালিম ভান্ডারীর স্ত্রী কাজল বেগম বাদি হয়ে মামলাটি দায়ের করেন।
স্থানীয় একাধিক সূত্র জানিয়েছে, বাবুর বাবা সিরাজ গাজী সাবেক চেয়ারম্যান। পারিবারিক দাপটে সে বিভিন্ন ধরণের অপরাধে জড়িয়ে পড়েছে। তার বিরুদ্ধে এলাকায় তরুণ-যুবকদের সংগঠিত করে কিশোর গ্যাং পরিচালনাসহ অস্ত্র, চাঁদাবাজি ও মাদক ব্যবসারও অভিযোগ রয়েছে। এছাড়া গাজী দিঘলিয়া সেনহাটী ইউপি চেয়ারম্যান গাজী আঃ হালিম হত্যা এবং বর্তমান সেনহাটী ইউপি চেয়ারম্যান জিয়া গাজীকে হত্যা চেষ্টার সময় এলাকাবাসী ধাওয়া ২টি অস্ত্র ফেলে পালিয়ে যায়। এ ঘটনায়ও তার বিরুদ্ধে থানায় মামলা রয়েছে। এছাড়া উপজেলার বাতিভিটা গ্রামের মফিজকে কুপিয়ে জখম করে। মাদক তলিকায়ও তার নাম রয়েছে বলে সূত্র জানিয়েছে।

ভাল লাগলে শেয়ার করুন
  • শেয়ার করুন