১৬ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, রবিবার,দুপুর ২:১০

শিরোনাম
কয়রায় মহসিন রেজা, ডুমুরিয়ায় এজাজ ও পাইকগাছায় আনন্দ চেয়ারম্যান নির্বাচিত খুলনায় নির্বাচন পরবর্তী সহিংসতা বিষয়ে সংবাদ সম্মেলন ফেরদৌস আহম্মেদ’র প্রধানমন্ত্রী গরিব-দু:খী মানুষের ভাগ্যের উন্নয়ন করে চলেছেন-কেসিসি মেয়র খুলনায় তিনদফা দাবিতে ৩ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক কর্মচারীদের কর্মবিরতি পালন দীর্ঘ অপেক্ষার পর রেল নেটওয়ার্কে যুক্ত হলো মোংলা বন্দর সরকার সবসময় দুর্যোগে ক্ষতিগ্রস্থ মানুষের পাশে থাকবে-ভূমিমন্ত্রী খুলনায় নতুন ভবনে নতুন আঙ্গিকে গণহত্যা জাদুঘর বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে শারিরিক সম্পর্ক; মোংলা থানার ওসি (তদন্ত) ক্লোজড সুন্দরবনে আগুন, কারণ বের করতে আরও ৭ কার্যদিবস সময় নিলো তদন্ত কমিটি

খুলনাঞ্চলে এক দিনে আরও ৩৭ জনের করোনা শনাক্ত

প্রকাশিত: জুন ১৪, ২০২০

  • শেয়ার করুন

গত একদিনে খুলনা মেডিকেল কলেজের ল্যাবে আরও ৩৭ জনের করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। যার মধ্যে খুলনা জেলার ২৯ জন। এছাড়া ও বিভাগের যশোর জেলার ৪ জন, বাগেরহাটে ২ জন, সাতক্ষীরায় ১ জন ও নড়াইল ১ জন রয়েছেন।

আজ রাতে পিসিআর (পলিমারেজ চেইন রিঅ্যাকশন) ল্যাবে নমুনা পরীক্ষায় তাঁদের করোনা পজিটিভ ধরা পড়ে। এ নিয়ে খুলনায় আক্রান্তের সংখ্যা ৩৭১ ছাড়িয়েছে। খুমেকের উপাধ্যক্ষ ডা. মেহেদী নেওয়াজ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

ডা.মেহেদী নেওয়াজ জানান, আজ (১৪ জুন) রবিবার খুলনা মেডিকেল কলেজের পিসিআর মেশিনে মোট ২৮২ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হ‌য়ে‌ছে। যার মধ্যে খুলনা জেলার নমুনা ছিলো ১৬৩ টি। এদের মধ্যে মোট ৩৭ জনের নমুনা পরীক্ষার রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে।
যার মধ্যে ২৯ জন খুলনা জেলার। বাকিরা যশোর,বাগেরহাট, সাতক্ষীরা ও নড়াইল জেলার।এর আগে শুক্রবার ১৩ জুন খুমেক ল্যাবে এর আগ পর্যন্ত সর্বোচ্চ ৮০ জনের করোনা শনাক্ত হয়।

খুলনা মহানগরীতে যারা করোনা আক্রান্ত হলেনঃ

৭/৩ মিস্ত্রীপাড়ায় শেখ মোঃ শহীদুল আলম (৪৫), সিএসএস আভা সেন্টারে কর্মরত মোঃ আবু রায়হান (২৩), বাগমারা মেইন রোডের বাসিন্দা মনোয়ারা (৪৫), ফরাজীপাড়ার মোঃ আমজাদ হোসেন (৬৫), ছোট বয়রা এলাকার ডাঃ মোঃ নুরুল হুদা (৩৩), শেখপাড়া এলাকার এস এম সাঈদুর রহমান (৫১), খালিশপুরের মোঃ সাহিদুল ইসলাম (৪৬), রনজিত মন্ডল (৫০), সোহেল মল্লিক (২৮), বসুপাড়া এলাকায় শামিম আব্বাস কনা (২৭), আবুনাসের হাসপাতালে কর্মরত সুজন সমাদ্দার ও মামুন মুন্সি, টুটপাড়ার লালু আক্তার (৬৫), খুলনা করোনা হাসপাতালে কর্মরত হেলেনা খাতুন (৩০) ও হাফিজুর রহমান (২৫)।

খুলনার উপজেলায় যারা আক্রান্ত হলেনঃঃ

ফুলতলা উপজেলার ইউএনও পারভীন সুলতানা ও মিরেরডাঙ্গায় মোঃ আসাদুজ্জামান (৫৩), রূপসা উপজেলার দেয়াড়া গ্রামের বেলাল তালুকদার (৩৮), ডুমুরিয়া উপজেলার আরাজী এলাকায় সজিব বিশ্বাস (২২), দাকোপ উপজেলার বাজুয়া এলাকার সুরাইয়া খাতুন (১১), তুহিন মির্জা (৪৬), আমতলা বানিয়াশান্তার হিমাদ্রী মন্ডল (৩০), পাইকগাছার সেলিম নেওয়াজ (৪২), কপিলমুনির প্রসেনজিৎ মন্ডল (২৫), তেরখাদা উপজেলার চরকুশলার ফরিদুর রহমান (৪২), যুবায়ের হোসেন (৩০), দিঘলিয়ার বারাকপুরের মোঃ মমিন শেখ (৪০), সেনহাটির ওহিদুল ইসলাম (৬০)।

তিনি বলেন,১৪ জুন পর্যন্ত করোনা আক্রান্ত সংখ্যা ৩৭১ জন,সুস্থ ৫৯ জন মৃত ৪ জন। ঊর্ধ্বমুখী আক্রান্তের হার ৬২ দিনে মোট আক্রান্ত ৪১৪ জন, তন্মধ্যে বিগত ৮ দিনেই আক্রান্ত হয় ২১৮ জন।

জেলার করোনা পরিস্থিতি প্রসঙ্গে জেলা সিভিল সার্জন ডা. সুজাত আহমেদ বলেন, প্রতিনিয়ত খুলনায় করোনা রোগীর সংখ্যা বাড়ছে। তবুও মানুষের মাঝে পর্যাপ্ত সচেতনতা দেখা যাচ্ছে না। অকারণে অনেকেই বাইরে ঘোরাঘুরি করছেন। এতে করোনায় আক্রান্ত হচ্ছেন। নারীদের তুলনায় পুরুষদের বেশি আক্রান্ত হওয়ার মূল কারণ হলো বাইরে ঘোরাঘুরি করা।

গত ১৩ এপ্রিল মহানগরের করীমনগর এলাকায় খুলনায় প্রথম করোনা রোগী শনাক্ত করা হয়। সরকারি হিসেবে করোনা আক্রান্ত হয়ে প্রথম কেউ মারা যান গত ২১ এপ্রিল। তিনি রূপসা উপজেলার রাজাপুর গ্রামের বাসিন্দা ছিলেন।

ভাল লাগলে শেয়ার করুন
  • শেয়ার করুন