আজ মঙ্গলবার, ১৬ই জুলাই, ২০১৯ ইং, ১লা শ্রাবণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

ইরান একা নয়, যুক্তরাষ্ট্রকে হুঁশিয়ারি রাশিয়ার

সমসাময়িক সময়ে ইরান-যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যকার উত্তেজনা বৈশ্বিক উদ্বেগের কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে। এর মধ্যেই বুধবার (২৬ জুন) রাশিয়ার একজন জ্যেষ্ঠ কূটনীতিক বলেন, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র যদি ইসলামিক প্রজাতন্ত্রিক রাষ্ট্রটির ওপর সামরিক হামলা চালানোর সিদ্ধান্ত নেয় তবে ইরান ‘একা থাকবে না’।

গত সপ্তাহে মার্কিন গোয়েন্দা ড্রোনকে বিধ্বস্ত করার পর তেহরানের ওপর নাটকীয় বিদ্বেষ প্রকাশ করে ওয়াশিংটন। মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প সোমবার (২৪ জুন) ইরানের সর্বোচ্চ নেতা আয়াতুল্লাহ আলী খামেনি এবং অন্যান্য শীর্ষ ইরানি কর্মকর্তাদের লক্ষ্যবস্তু করে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে।

ইরানের মার্কিন ড্রোন বিধ্বস্তে রাশিয়াও বলে যে, ড্রোনটি আকাশ সীমা লঙ্ঘন করে ইরানে ঢুকে পড়ে। মঙ্গলবার ‘আমেরিকার কোনোকিছুতে’ হামলার দায়ে ইরানের ওপর সামরিক অভিযানের অনুমোদন দেয়, তবে শেষ সময় সেখান থেকে সরে গিয়ে আলোচনার জন্য দ্বার উন্মুক্ত করে।

ইরানসহ এশিয় দেশগুলোর পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বিশেষ দূত জমির কাবুলভ মস্কোর রাশিয়ান ইরানি নীতিমালার ফোরামে বলেন, ইরান এই ধরনের যুদ্ধের বিরোধিতা করবে এবং ইরান একা নয়।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ইরানের ওপর হামলা করলে ইরানকে বস্তুগত সহায়তা প্রদানের জন্য রাশিয়া প্রস্তুত কি না তা জানতে চাওয়া হলে কাবুলভ বলেন, ‘নির্দিষ্ট পদক্ষেপগুলো রাশিয়ার রাষ্ট্রপতির জন্য একটি প্রশ্ন। তবে, শুধু রাশিয়াই নয়, অন্যান্য অনেক দেশ ইরানের প্রতি সহানুভূতিশীল’।

দৈনিক কমার্সান্ট বিজনেস প্রতিবেদনে তাকে উদ্ধৃত করে বলে, ‘মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র যদি কোনো বেপরোয়া ও বুনো পদক্ষেপ গ্রহণ করে, ‘সৃষ্টিকর্তা ক্ষমা করুক’, তেহরান তখন আর একা থাকবে না।’

আরও পড়ুন : ৩য় বিশ্বযুদ্ধ : চীন-রাশিয়া-ইরান-উ.কোরিয়ার বিরুদ্ধে মার্কিন জোটে কারা?

রাশিয়ান পররাষ্ট্রমন্ত্রী সার্গেই লেভেরব আলাদাভাবে বলেন যে, মস্কো ইরান ও যুক্তরাষ্ট্রকে একটি ‘সভ্য’ সংলাপ শুরু করার জন্য প্ররোচিত করার চেষ্টা করবে। বুধবার আরেকটি ব্রিফিংয়ে সার্গেই বুলেন, ‘এটি, অবশ্যই, (আমেরিকান) একতরফা নিষেধাজ্ঞা এবং ব্ল্যাকমেইল নীতিকে সমাপ্ত করবে।’

এই সপ্তাহের শুরুর দিকে, রাশিয়ার উপ-পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই রায়বকভ বলেছেন, ইরানের ওপর যুক্তরাষ্ট্রের নতুন নিষেধাজ্ঞার বিরুদ্ধে রাশিয়া ও তার অংশীদাররা শক্ত পদক্ষেপ গ্রহণ করবে, তবে এই পদক্ষেপগুলো কী হবে তা নির্দিষ্ট করে বলেনি। ‘দা মস্কো টাইমস’

ভাল লাগলে শেয়ার করুন

মন্তব্য করুন

     এই বিষয়ের আরো সংবাদ